অতি বৃষ্টির কারণে ক্ষতিগ্রস্ত বাড়ি পুননির্মাণের সরকারি অনুদান ২০২১ – পশ্চিম মেদিনীপুর | HB Grants Paschim Medinipur

২০২১ সালের ২৭-০৭-২০২১ তারিখ থেকে পশ্চিম মেদিনীপুর জেলায় অতি বৃষ্টির কারণে যাদের বাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, তাদের বাড়ি পুননির্মাণের জন্য সরকারের পক্ষ থেকে অনুদান (বাড়ি পুননির্মাণের সরকারি অনুদান ২০২১) দেওয়া হচ্ছে। এই অনুদান পাওয়ার জন্য অনলাইনে এবং অফলাইনে আবেদন গ্রহণ চলছে।

বাড়ি পুননির্মাণের সরকারি অনুদান ২০২১ এর গুরুত্বপূর্ণ তারিখ

আবেদন আরম্ভের তারিখ : ০৫-০৮-২০২১ বিকাল ৩.১৫ মিনিট

আবেদনের শেষ তারিখ : ৩১-১২-২০২১ বিকাল ৩.১৫ মিনিট

আবেদনপত্র কোথায় জমা দিতে হবে?

অফলাইনে আবেদনের ক্ষেত্রে  আবেদন পত্রটি আপনার নিকটবর্তী ব্লক বা মিউনিসিপালিটি অফিসে জমা দিতে হবে।

বাড়ি পুননির্মাণের সরকারি অনুদান ২০২১ এর আবেদন পদ্ধতি

এই প্রকল্পে আবেদনের জন্য দুটি পদ্ধতি আছে

অফলাইন পদ্ধতিঃ

১) অফলাইনে আবেদন করতে হলে প্রথমে আবেদনপত্র সংগ্রহ করতে হবে। এর জন্য পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার অফিসিয়াল ওয়েবসাইট ( https://www.paschimmedinipur.gov.in/) থেকে আবেদনপত্রটি ডাউনলোড করতে হবে।

২) আবেদনপত্রটি যথাযথভাবে পূরণ করে নিচের ডকুমেন্টসহ  ব্লক বা মিউনিসিপালিটি অফিসে জমা দিতে হবে।

  • আধার কার্ড / ভোটার কার্ডের জেরক্স, পরিচয়পত্রের প্রমাণ হিসাবে।
  • ব্যাঙ্ক পাশবুকের প্রথম পাতার জেরক্স।
  • MGNREGS জব কার্ডের জেরক্স, যদি থাকে।

অনলাইন পদ্ধতি

১) পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে যান বা আবেদনের জন্য ক্লিক করুন

বাড়ি পুননির্মাণের সরকারি অনুদান ২০২১
HB Application Paschim Medinipur

২) Apply Online for HB Grants লেখার উপর ক্লিক করুন।

বাড়ি পুননির্মাণের সরকারি অনুদান ২০২১ আবেদন

৩) অ্যাকাউন্ট নম্বর, ফোন নম্বর, ID Proof আধার কার্ড বা ভোটার কার্ড সিলেক্ট করতে হবে এবং কার্ডের নম্বর লিখতে হবে।

৪) বামদিকে থাকা ‘Proceed’ button এর উপর ক্লিক করতে হবে।

বাড়ি পুননির্মাণের সরকারি অনুদান ২০২১ আবেদন

৫) তারপর বাকি ফর্মটি পূরণ করা এবং ডকুমেন্ট আপলোড করা।

পরিচয়পত্রের প্রমাণ হিসাবে আধার কার্ড / ভোটার কার্ড এবং ব্যাঙ্ক পাশবুকের প্রথম পাতা আপলোড করতে হবে। প্রতিটি ডকুমেন্টের সাইজ সর্বোচ্চ ২০০ KB এর মধ্যে হবে এবং ফর্মাট PDF / JPG হবে।

৬) ডিক্লারেশনে ঠিক চিহ্ন দিয়ে ডানদিকে থাকা ‘Submit’ button এ ক্লিক করলে আবেদনটি সাবমিট হয়ে যাবে।

আবেদনের সময় কী কী বিষয় লক্ষ্য রাখতে হবে?

১) আবেদনকারীর নাম ব্যাঙ্ক পাসবুক অনুসারে লিখতে হবে।

২) ID Proof  হিসাবে আধার কার্ড বা ভোটার কার্ড যা সিলেক্ট করবেন সেই কার্ডের নম্বরই লিখতে হবে এবং কার্ডটি আপলোড করতে হবে।

আরও পড়ুন –

লক্ষ্মীর ভাণ্ডার প্রকল্প

প্রধান মন্ত্রী কিষান সম্মান নিধি

Leave a Reply

Your email address will not be published.